1. admin@voicebarta.com : admin :
সোমবার, ১৮ অক্টোবর ২০২১, ০৮:০৮ পূর্বাহ্ন
শিরোনাম :
রোহিঙ্গা ও আটকে পড়া পাকিস্তানীরা বাংলাদেশের বোঝা- প্রধানমন্ত্রী শেখ হাসিনা পবিত্র ঈদে মিলাদুন্নবী (সা.) উপলক্ষে সরকারী ছুটি পূনর্নির্ধারন দ্রব্যমূল্য নিয়ন্ত্রন করার দাবি বাংলাদেশের কমিউনিস্ট পার্টির তথ্য প্রতিমন্ত্রীর অপসারণ ও দ্রব্যমূল্যের ঊর্ধ্বগতি নিয়ন্ত্রণ চায় ইসলামী আন্দোলন বাংলাদেশ প্রতিমা বিসর্জনে শেষ হলো হিন্দু সম্প্রদায়ের সবচেয়ে বড় উৎসব দুর্গাপূজা সাম্প্রদায়িক সম্প্রীতি নষ্ট করতে বিএনপি – জামায়াত – হেফাজতের সম্পর্ক রয়েছে- সন্দেহ বাংলাদেশ ইউনাইটেড ইসলামী পার্টির হঠাৎ সকাল হতে মুঠোফোনে দ্রুতগতির থ্রিজি ও ফোরজি ইন্টারনেট বন্ধ কোরআন অবমাননার প্রতিবাদ ও তথ্য প্রতিমন্ত্রীর পদত্যাগের দাবিতে ছাত্র মজলিসের প্রতিবাদ সভা অনুষ্ঠিত ক্ষমতাসীনদের একটি সংঘবদ্ধচক্রের কারণে দ্রব্যমূল্য নিয়ন্ত্রণের বাহিরে – ইসলামী যুব আন্দোলন জাতীয় প্রেস ক্লাবের সিদ্ধান্ত অবিলম্বে প্রত্যাহার করুন- আমানুল্লাহ আমান

বিদ্রোহী কবি কাজী নজরুল ইসলামের ৪৫তম প্রয়াণ দিবস আজ

ভয়েস বার্তা ডেস্ক :
  • আপডেট সময় : শুক্রবার, ২৭ আগস্ট, ২০২১
  • ১৪৫ বার পঠিত

দেশের শোষিত-নিপীড়িত মানুষের বঞ্চনার ক্ষোভ দীপ্ত শিখার মতো জ্বলে উঠেছিল যার কণ্ঠে; সাম্প্রদায়িকতার পরিবর্তে অসাম্প্রদায়িকতা তথা মানবতার বাণী শুনিয়েছিলেন যিনি- সেই কবি কাজী নজরুল ইসলামের ৪৫তম প্রয়াণ দিবস আজ।

তিনি ছিলেন একাধারে কবি, সাহিত্যিক, সংগীতজ্ঞ, সাংবাদিক, রাজনীতিবিদ এবং সৈনিক। দারিদ্র্যের কারণে মাত্র ১০ বছর বয়সেই পরিবারের ভার বহন করতে হয়েছে তাকে। ভারতীয় সেনাবাহিনীতে কিছুদিন কাজ করার পর পেশা হিসাবে বেছে নেন সাংবাদিকতা।

সাম্রাজ্যবাদবিরোধী এ কবি তৎকালীন ভারতবর্ষে ব্রিটিশ সরকারের বিরুদ্ধে আন্দোলনে সোচ্চার ভূমিকা রাখেন। কারাবন্দি থাকা অবস্থায় তিনি রচনা করেন ‘রাজবন্দীর জবানবন্দী’। বন্দিদশায় তার হাতে সৃষ্টি হয়েছে গান, কবিতা, প্রবন্ধ, গল্প, উপন্যাস, ছোট গল্পসহ অসংখ্য রচনা।

১৯৭২ সালের ২৪ মে স্বাধীন বাংলাদেশের রাষ্ট্রপতি জাতির পিতা বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিবুর রহমান ভারত সরকারের অনুমতি নিয়ে কবি নজরুলকে সপরিবারে বাংলাদেশে নিয়ে আসেন। তাকে দেয়া হয় জাতীয় কবির মর্যাদা। বাংলা সাহিত্যে বিশেষ অবদানের স্বীকৃতিস্বরূপ ১৯৭৪ সালে ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয় কবিকে সম্মানসূচক ডি. লিট উপাধিতে ভূষিত করে। ১৯৭৬ সালে বাংলাদেশ সরকার কবিকে বাংলাদেশের নাগরিকত্ব দেয়। একই বছরের ২১ ফেব্রুয়ারি একুশে পদে ভূষিত করা হয় কবিকে।

১৩০৬ বঙ্গাব্দের ১১ জ্যৈষ্ঠ অবিভক্ত বাংলার বর্ধমান জেলার চুরুলিয়ায় যে কবির আবির্ভাব ঘটেছিল ‘জ্যৈষ্ঠের ঝড়’ হয়ে; সে ঝড় চিরতরে থেমে গিয়েছিল ঢাকার পিজি হাসপাতালের (বর্তমান বঙ্গবন্ধু শেখ মুজিব মেডিকেল বিশ্ববিদ্যালয়) কেবিনে, ১৩৮৩ বঙ্গাব্দের ১২ ভাদ্রে। অঙ্কের হিসাবে তার জীবনকাল ৭৭ বছরের; তবে সৃষ্টিশীল ছিলেন মাত্র ২৩ বছর। নজরুলের এই ২৩ বছরের সাহিত্যজীবনের সৃষ্টিকর্ম বাংলা ভাষা ও সাহিত্যের অমূল্য সম্পদ।

জাতি আজ যথাযোগ্য মর্যাদায় গভীর শ্রদ্ধা আর ভালোবাসায় স্মরণ করবে এ কবিকে। ঢাকা বিশ্ববিদ্যালয়ের কেন্দ্রীয় মসজিদের পাশে চিরনিদ্রায় শায়িত কবির সমাধি ছেয়ে যাবে ফুলে ফুলে।

One thought on "বিদ্রোহী কবি কাজী নজরুল ইসলামের ৪৫তম প্রয়াণ দিবস আজ"

  1. almas says:

    বিনম্র শ্রদ্ধা নিবেদন করছি।

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ জাতীয় আরও খবর

ফেসবুকে আমরা

© All rights reserved © 2021 Voice Barta
Theme Customize Theme Park BD